top of page
Search

কাতলা মাছের অভিনব দুটি রান্না নিয়ে হাজির দেয়াসিনি রায়...

অন্যান্য মাছে প্রচুর বাছবিচার থাকলেও রুই-কাতলায় অরুচি এমন মানুষ এই বঙ্গদেশে কম'ই আছেন। তবে একঘেয়ে ঝোল ঝাল খেতে না চাইলে একটু অন্যরকম এই রেসিপি গুলো ট্রাই করতেই পারেন।



কাতল পেটির শুক্তো

কী কী লাগবে

৩ টে কাতলা মাছের পেটি, আলু, বেগুন, উচ্ছে, সজনেডাঁটা, রাঙালু, কাঁচকলা, পোস্ত দেড় চা চামচ, সরষে ১ চা চামচ, বিউলি ডালের বড়ি, দুধ ১ কাপ, (মেথি, মৌরি) ভাজা মশলা ১ চামচ, সরষের তেল পরিমাণমতো, নুন চিনি, স্বাদ মতো

ফোড়ন এর জন্য: পাঁচফোড়ন, তেজপাতা


কিভাবে বানাবেন

রান্নার শুরুতেই একটা ভাজা মশলা তৈরি করে নিন। শুকনো কড়াইতে মেথি, মৌরি ভেজে শিলে বেটে নিন। সবজি গুলো লম্বা করে কেটে নিন। সরষে-পোস্ত বেটে নিন। আদা বেটে নিন। এবার কড়াইতে সরষের তেল দিয়ে বড়ি ভেজে তুলে নিন। একে একে কাতলার পেটি গুলো নুন মেখে হালকা ভেজে নিন। মাছ তুলে নিয়ে উচ্ছে, বেগুন, কাঁচকলা এক এক করে ভেজে নিন। এবার ওই তেলেই পাঁচফোড়ন, তেজপাতা ফোড়ন দিয়ে আদা বাটা দিন। একটু ভেজে নিয়ে বাকি সবজি দিয়ে (উচ্ছে, কাঁচকলা আর বেগুন বাদে) দিন। স্বাদ মতো নুন দিন। ভালোভাবে নাড়িয়ে ঢাকা দিয়ে রাখুন কিছুক্ষন। এবার পরিমান মতো জল দিয়ে সবজি খানিক সেদ্ধ হয়ে এলে কাঁচকলা দিয়ে দিন, বেগুন দিন। বেটে রাখা সরষে-পোস্ত দিন। ২-৩ মিনিট আবারও ভালো করে নেড়ে নিন। এবার এর মধ্যে ঘন করা ১ কাপ দুধ অল্প ময়দা/কর্নফ্লাওয়ার মিশিয়ে ঢেলে দিন। ফুটে উঠলে কাতলা মাছের পেটি, উচ্ছে ভাজা আর বড়ি দিন। সব শেষে শিলে বেটে নেওয়া ভাজা মশলা, স্বাদমতো চিনি আর ঘি দিয়ে, গ্যাস বন্ধ করে মিনিট ১৫ ঢেকে রাখুন। এতে স্বাদ আরো ভালো হবে।


কাতল মাছ ভাতে

কী কী লাগবে

কাতল মাছের বড় টুকরো ৪ টি, সর্ষে বাটা ২ চা চামচ (সাদা-কালো মেশানো), আদা বাটা ১/২ চা চামচ, টকদই ১ চা চামচ, কাঁচালঙ্কা ৪ টি, নারকেল কোরা ২ চা চামচ, কিশমিশ বাটা ১ চা চামচ, হলুদ গুঁড়ো সামান্য, সর্ষের তেল, নুন চিনি প্রয়োজনমতো, সামান্য মেথি


কিভাবে বানাবেন

প্রথমে মাছগুলো হালকা ভেজে তুলে রাখতে হবে। ভাজাটা ঐচ্ছিক। না ভাজলে, মাছ ১০ মিনিট, নুন, লেবুর রস দিয়ে মেখে রাখতে হবে। একটা আলাদা পাত্রে তেল গরম করে মেথি ফোড়ন দিয়ে, মেথি তুলে ফেলতে হবে। এবার মাছে সব মশলা (সর্ষে-আদা-নারকেল-কাঁচালঙ্কা, কিশমিশ বাটা, টকদই, নুন, চিনি) মেখে নিন। একটা টিফিন বক্সে কলাপাতা দিয়ে মাছের মিশ্রন ঢেলে ওপর দিয়ে মেথি ফোড়ন এর তেল ছড়িয়ে সাথে আরও কিছুটা কাঁচা তেল ও ৩-৪ টি চেরা কাঁচালঙ্কা দিতে হবে। সদ্য ফ্যান গালা গরম ভাত হাড়ি থেকে অর্ধেক ঢেলে তারমধ্যে টিফিন বক্স পুরে বাকি ভাত চাপা দিয়ে ঢেকে রেখে দিতে হবে ঘন্টা খানেক। ভাতের ভাঁপে রান্নাটা হবে। এছাড়াও কড়াইতে জল দিয়ে টিফিন বক্স বসিয়েও রান্নাটা করতে পারেন।

Comments


bottom of page