top of page
Search

জামাইষষ্ঠীর মহাভোজ... সেরা পাঁচটি রেসিপি দিলেন স্বাগতা সাহা...

ঐতিহ্যবাহী কিন্তু একটু অন্যরকম স্বাদের রেসিপির খোঁজ যদি করে থাকেন, আজকের রেসিপি গুলো শুধুমাত্র আপনার জন্য...



গলদা চিংড়ির পোলাও


কী কী লাগবে


গলদা চিংড়ি মাছ ৪০০ গ্ৰাম, তেল অথবা ঘি ৮ টেবিল চামচ, পেঁয়াজ কুচি ১/২ কাপ, পেঁয়াজ বাটা ২ টেবিল চামচ, রসুন বাটা ১ চা চামচ, আদা বাটা ১/২ চা চামচ, লঙ্কা বাটা ১ চা চামচ, জিরে বাটা ১ চা চামচ, ছোট এলাচ, দারুচিনি ৪-৫ টি, গোলমরিচ গুঁড়ো ১ চা চামচ, পোলাও য়ের চাল ৫০০গ্ৰাম, কেওড়া জল ১ টেবিল চামচ, নারকেলের দুধ ২ কাপ, চিনি ১ টেবিল চামচ, নুন পরিমাণমতো


কীভাবে বানাবেন

চিংড়ি মাছ নুন মেখে ১০ মিনিট রেখে তেল অথবা ঘি গরম করে ভেজে তুলে নিন। ঐ তেলে পেঁয়াজ কুচি দিয়ে লাল করে ভেজে একে একে সব বাটা মশলা দিয়ে কষুন। সামান্য জলের ছিটে আর ভাজা চিংড়ি মাছ দিয়ে কষিয়ে নামিয়ে নিন। অন্য একটি কড়াইতে ঘি গরম করে গরমমশলা ফোড়ন দিয়ে একে একে পোলাও এর চাল, জল, কেওরা জল, নারকেলের দুধ, চিনি দিয়ে ঢেকে রান্না করুন। এরপর গোলমরিচ গুঁড়ো আর চিংড়ি দিয়ে দমে বসান। ২০-২৫ পর বেরেস্তা ছড়িয়ে পরিবেশন করুন।


আড় মাছের ঝাল


কী কী লাগবে


আড় মাছ ১ কেজি, বড় সাইজের ২ টো পেঁয়াজ বাটা, রসুন বাটা ২ চামচ, আদা বাটা ১ চামচ, টমেটো বাটা ১ টা মাঝারি মাপের, কাঁচালঙ্কা বাটা ৪ চা চামচ, জিরে গুঁড়ো ২ চা চামচ, হলুদ গুঁড়ো ১ চা চামচ, কাশ্মীরি লঙ্কার গুঁড়ো ১ চা চামচ, শুকনো লঙ্কা গুঁড়ো ১ চা চামচ, ফোড়নের জন্য (গোটা শুকনো লঙ্কা ২ টো, তেজপাতা ১ টা), নুন স্বাদ মতো, সর্ষের তেল আন্দাজ মতো, গরম মশলা গুঁড়ো ১ চা চামচ, কাজুবাদাম বাটা ২ চা চামচ


কীভাবে বানাবেন


তেল গরম করে নুন হলুদ মাখা মাছগুলো ভেজে তুলে নিন। ঐ তেলে তেজপাতা শুকনো লঙ্কা ফোড়ন দিয়ে একে একে কাজুবাদাম বাটা আর গরমমশলা গুঁড়ো বাদে বাকি সব বাটা মশলা ও গুঁড়ো মশলা দিয়ে কষুন। এবার ভাজা মাছ আর কাজুবাদাম বাটা দিয়ে কষে পরিমাণ মতো জল দিয়ে ঢেকে রান্না করুন। গরমমশলা গুঁড়ো ছড়িয়ে নামিয়ে নিলেই তৈরী।

পনিরের ডাল


কী কী লাগবে


মুগ ডাল ১ কাপ, পনির ৩০০ গ্ৰাম, কড়াইশুঁ টি ১ কাপ, জিরা গুঁড়ো ১/২ চা চামচ, হলুদ গুঁড়ো ১/২ চা চামচ, গরম মশলা গুঁড়ো ১/৪ চা চামচ, হিং ১ চিমটি, আদাবাটা ১ চা চামচ, তেজপাতা ১ টা, শুকনো লঙ্কা ২ টো, গোটা জিরা অল্প, নুন মিস্টি স্বাদমতো, ঘি ৪ টেবিল চামচ


কীভাবে বানাবেন

মুগ ডাল শুকনো ভেজে নিয়ে সেদ্ধ করে নিন।

পনির কিউব করে কেটে ঘি তে ভেজে তুলে নিন। জিরা, তেজপাতা, শুকনো লঙ্কা, তেজপাতা, হিং, আদা বাটা ফোড়ন দিয়ে হলুদ গুঁড়ো, জিরে গুঁড়ো অল্প জলের ছিটে দিয়ে কষুন। সেদ্ধ ডাল, আন্দাজ মতো জল, নুন, চিনি, ভেজে রাখা পনির, কড়াইশুঁটি দই দিয়ে কিছুসময় রান্না করে গরমমশলা গুঁড়ো ছড়িয়ে পরিবেশন করুন।



সাবেকি মাটন কোরমা



কী কী লাগবে 


১/২ কেজি মাটন, ২ টো পেঁয়াজ (ভেজে শিলেবাটা), ৪ টেবিল চামচ আদা-রসুন বাটা,


৪ চা চামচ লঙ্কা বাটা, ৪ টেবিল চামচ টকদই,


৪ টেবিল চামচ কাজুবাদাম বাটা, ১/২ চা চামচ গরম মশলা(দারচিনি, ছোট এলাচ, লবঙ্গ,জায়ফল,জয়িত্রী) গুঁড়ো, ১/২ চা চামচ হলুদ গুঁড়ো, ২ চা চামচ কাশ্মীরি লঙ্কা গুঁড়ো,


১/২ চা চামচ ধনে গুঁড়ো, স্বাদ অনুযায়ী নুন এবং চিনি, পরিমাণ মতো বেরেস্তা, সরষের তেল এবং ঘি।




কীভাবে বানাবেন 


মাংস ধুয়ে তারমধ্যে নুন, লঙ্কা গুঁড়ো আর সরষের তেল মেখে রাখুন। ঘি গরম করে গরমমশলা গুঁড়ো, ভাজা পেঁয়াজ বাটা, আদা রসুন বাটা, নুন, হলুদ গুঁড়ো, ধনেগুঁড়ো, কাশ্মিরী লঙ্কা গুঁড়ো দিয়ে কষুন। এবার মেখে রাখা মাংস, টকদই, কাজুবাদাম বাটা দিয়ে খুব ভালো করে কষে গরম জল দিয়ে ঢেকে রান্না করুন। তেল ভেসে একদম কষা কষা হলে বেরেস্তা আর গরমমশলা গুঁড়ো ছড়িয়ে পরিবেশন করুন লুচি, পরোটা অথবা বাসন্তী পোলাও এর সঙ্গে।



ছানার পায়েস



কী কী লাগবে 



দুধ ২ কেজি, চিনি ৫০০গ্ৰাম, ছোটো এলাচ ৬ টি, কাজুবাদাম গুঁড়ো, আমন্ড গুঁড়ো ও পেস্তাবাদাম কুচি প্রয়োজন মতো 



কীভাবে বানাবেন 


১ কেজি দুধ জ্বাল দিয়ে ছানা কাটিয়ে নিন। সাদা কাপড়ে ভালো করে চেপে চেপে জল ঝরিয়ে নিন। ১ চা চামচ চিনি দিয়ে ছানাটিকে হাতের তালু দিয়ে ঘষে ঘষে ৬-৭ মিনিট মতো মেখে নিন। এবার এর থেকে ছোট ছোট গোল গোল বল বানিয়ে নিতে হবে। বাকি ১ কেজি দুধ ফুটিয়ে ঘন করে ৫০০ গ্রাম মতো করে নেবেন। এলাচ আর কাজুবাদাম, আমণ্ড গুঁড়ো দিয়ে ১৫ মিনিট মতো ঠাণ্ডা হতে দিন। কারন ফুটন্ত দুধে ছানার বল দিলে দুধ কেটে যেতে পারে। এবার কম আচে বলগুলো ছেড়ে ৫-৬ মিনিট বাদে নামিয়ে নেবেন। দেখবেন যে ছানার বলগুলো ফুলে বড় হয়ে গেছে। এরপর ওপরে পেস্তা কুচি ছড়িয়ে ইচ্ছে মতো সাজিয়ে গরম বা ঠান্ডা পরিবেশন করুন ছানার পায়েস।



অনুলিখন: সুস্মিতা মিত্র

Comentarios


bottom of page