top of page
Search

নিরামিষ রান্নার প্রথম পাতেই থাকুক সুস্বাদু উচ্ছের রেসিপি। ভালোবাসবে বাড়ির খুদে সদস্যরাও...

গরম পড়তে শুরু করলে একটু তেঁতো খাওয়া ভালো একথা সবাই জানে। তবে অনেকেই হয়তো জানেন না, উচ্ছের গুণে শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ে অনেকটা। এছাড়া ওজন কমাতে, লিভার সুস্থ রাখতে, ত্বকের সৌন্দর্য বজায় রাখতে, ডায়াবেটিস রোগের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। রোজকার খাবারের তালিকায় এমন কিছু থাকা উচিত, যা এই সবকিছু একসঙ্গে হওয়া সম্ভব। উচ্ছে বা করলা তেমনই সবজি। রস করে, সেদ্ধ করে, ভেজে বা অন্য কোনও সবজির সঙ্গে তরকারি করে খাওয়া যায়।

শিশুদের ক্ষেত্রেও এর উপকারিতা রয়েছে। গরমে এলার্জি সারিয়ে তুলতে, খাবারের অরুচি দূর করতে, বসন্তের মত অসুখ সারাতে, কৃমির উপদ্রব থেকে রক্ষা করতে সাহায্য করে। তাই উচ্ছের এই অসাধারণ ও সুস্বাদু রেসিপি দুটি সকলের জন্যই পারফেক্ট। যাঁরা উচ্ছে খেতে পছন্দ করেন না, তাঁরাও এই রেসিপির স্বাদ নিলে চমকে যাবেন। এখানে বলে রাখা ভাল, এই উচ্ছের পদ দুটিতে তেঁতোর স্বাদ একেবারেই নেই বললেই চলে। মুখে লেগে থাকবে চাপড় এবং নারকেলের স্বাদ। কিভাবে করবেন, কী কী লাগবে, সবটা দেওয়া রইল এখানে…


নারকোলি উচ্ছে



কি কি লাগবে


২ টো উচ্ছে গোল গোল করে কাটা,


২ টেবিল চামচ নারকেল বাটা,


১ চা চামচ আদা বাটা,


২ চা চামচ কাঁচা লঙ্কা বাটা,


১ চা চামচ জিরে গুঁড়ো,


১/২ চা চামচ গোটা সর্ষে,


১ টা শুকনো লঙ্কা,


১ টা তেজপাতা,


লবণ স্বাদমতো,


১/২ চা চামচ হলুদ গুঁড়ো,


সামান্য চিনি,


১ চা চামচ নারকেল কোরা ও চেরা কাঁচালঙ্কা সাজানোর জন্য,


২ টেবিল চামচ সর্ষের তেল,


১ চা চামচ ঘি এবং


প্রয়োজনমতো জল। 



কিভাবে বানাবেন


প্রথমে একটা কড়াই গরম করে তাতে সর্ষের তেল দিয়ে তেজপাতা, শুকনো লঙ্কা ও গোটা সর্ষে ফোড়ন দিয়ে কেটে রাখা উচ্ছে গুলো দিয়ে দিতে হবে।


সামান্য লবণ দিয়ে কিছুক্ষণ ভেজে নিতে হবে।


এবার উচ্ছে গুলো কড়াইয়ের একপাশে সরিয়ে ফাঁকা জায়গায় ঘি দিয়ে আদা বাটা, কাঁচা লঙ্কা বাটা, হলুদ গুঁড়ো ও জিরে গুঁড়ো দিয়ে দিতে হবে।


এরপর উচ্ছের সাথে পুরো মশলাটা মিশিয়ে নিতে হবে।


কিছুক্ষণ রান্না করে, নারকেল বাটা দিয়ে দিয়ে ভালো করে কষিয়ে নিয়ে, সামান্য চিনি আর জল দিয়ে ঢেকে রান্না করতে হবে।


মাখা মাখা হয়ে এলে নারকেল কোরা ও চেরা কাঁচালঙ্কা ছড়িয়ে নামিয়ে নিলেই তৈরি নারকোলি উচ্ছে।


চাইলে সামান্য ঘি দিতে পারেন স্বাদ আরও ভালো হবে।


উচ্ছের চাপড় ঘন্ট


কী কী লাগবে


এক কাপ উচ্ছে(গোল করে কাটা),


১ কাপ ভেজানো মটর ডাল,


২ টো কাঁচা লঙ্কা,


১/২ চা চামচ পাঁচ ফোড়ন,


২ টো তেজপাতা,


২ চা চামচ আদা বাটা,


১/২ চা চামচ হলুদ গুঁড়ো,


১ চা চামচ জিরে গুঁড়ো,


১/২ চা চামচ রাঁধুনি বাটা,


সামান্য চিনি,


লবণ স্বাদমতো,


২ টেবিল চামচ দুধ,


সর্ষের তেল ৫ টেবিল চামচ ,


ঘি ১ চা চামচ


জল প্রয়োজন মতো। 


কিভাবে বানাবেন


প্রথমে কড়াই গরম করে তাতে ২ টেবিল চামচ সর্ষের তেল দিয়ে উচ্ছে গুলো ভেজে তুলে নিতে হবে।


এবার ভেজানো মটর ডাল আর কাঁচা লঙ্কা একসাথে বেটে নিতে হবে।


ডাল বাটা হয়ে গেলে তাতে সামান্য লবণ মিশিয়ে নিয়ে, একটা তাওয়া গরম করে তাতে ১ টেবিল চামচ সর্ষের তেল দিয়ে চ্যাপ্টা করে ছোট ছোট ডালের বড়া বা চাপড় গুলো ভেজে নিতে হবে।


কড়াইয়ে আবার তেল দিয়ে গরম করে নিয়ে, পাঁচ ফোড়ন ও তেজপাতা ফোড়ন দিয়ে আদাবাটা, হলুদ গুঁড়ো, লবণ, জিরে গুঁড়ো ও সামান্য জল দিয়ে মশলা কষিয়ে নিতে হবে।


রাঁধুনি বাটা দিয়ে আবারও কিছুক্ষণ নেড়েচেড়ে নিয়ে ভেজে রাখা উচ্ছে ও ডালের বড়া গুলো দিয়ে দিতে হবে।


মশলার সাথে মিশিয়ে নিয়ে জল দিয়ে কিছুক্ষণ ঢেকে রান্না করে নিতে হবে।


৫ থেকে ৭ মিনিট পর ঢাকনা খুলে চিনি দিয়ে আবারও নেড়েচেড়ে, ডালের বড়া গুলো একটু ভেঙে দিতে হবে তাতে মাখা মাখা হবে।


সবশেষে নামানোর আগে দুধ ও ঘি দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিয়ে নামিয়ে নিতে হবে।


এবার গরম গরম ভাতের সাথে পরিবেশন করুন উচ্ছের চাপড় ঘন্ট।



রেসিপি এবং ছবি সৌজন্যেঃ দেবযানী গুহ বিশ্বাস

অনুলিখন: সুস্মিতা মিত্র

Comments


bottom of page