top of page
Search

সাবেকিয়ানাতে জামাইষষ্ঠী... বাঙালিয়ানায় ভরপুর পাঁচটি রেসিপি দিলেন সুস্মিতা দে দাস...

আধুনিকতার যুগেও কিছু বাঙালি রান্না চিরন্তন। আজ রইলো সেইরকম'ই কিছু খাঁটি বাঙালি পদের রেসিপি....



কষা মাংস 


কী কী লাগবে 


খাসির মাংস ১ কেজি, পেঁয়াজ ৫ টা, টমেটো ১ টা (কুচি করা), আদাবাটা ২ টেবিল চামচ,


রসুন বাটা ৩ টেবিল চামচ, টকদই ৫০ গ্রাম,


নুন স্বাদ অনুযায়ী, হলুদ গুঁড়ো ১ চামচ, ধনে গুঁড়ো ২ চামচ, লঙ্কা গুঁড়ো ১ চামচ, জিরে গুঁড়ো ১ চামচ, গুঁড়ো গরমমশলা ১ চামচ,


ঘি ১ চামচ, গোটা গরমমশলা (এলাচ, দারচিনি, লবঙ্গ), গোটা জিরে ১/৪ চা চামচ, সর্ষের তেল ৩ টেবিল চামচ, গরম জল পরিমান মতো


কীভাবে বানাবেন


মাংস, টকদই, আদা রসুন বাটা, নুন, হলুদ গুঁড়ো, ধনে গুঁড়ো, জিরে গুঁড়ো, লঙ্কা গুঁড়ো, কাশ্মীরি লঙ্কা গুঁড়ো, একচামচ সর্ষের তেল দিয়ে একঘন্টা মেখে রাখুন। কড়াইতে বাকি তেল গরম করে গোটা গরম মশলা, তেজপাতা আর গোটা জিরে ফোড়ন দিয়ে পেঁয়াজ কুচি লাল করে ভেজে টমেটো কুচি আর মেখে রাখা মাংস দিয়ে কষুন। ঢেকে অল্প আঁচে রান্না করুন ১০ মিনিট। গরম জল দিয়ে ফুটতে দিন। মাংস সেদ্ধ হলে ঘি গরমমশলা গুঁড়ো মিশিয়ে নামিয়ে নিন। ইচ্ছে হলে আলু দিতে পারেন।


বাসন্তী পোলাও



কী কী লাগবে 


গোবিন্দভোগ চাল দেড় কাপ, কাজুবাদাম ৫০ গ্রাম, কিশমিশ ২৫ গ্রাম, ঘি ৩ টেবিল চামচ,


গোটা গরমমশলা (এলাচ, দারচিনি, লবঙ্গ,


তেজপাতা), নুন স্বাদ অনুযায়ী, চিনি ৩ টেবিল চামচ, হলুদ গুঁড়ো ১/২ চা চামচ, আদা বাটা ১ চা চামচ, গরম মশলা গুঁড়ো ১ চা চামচ, কাঁচা লঙ্কা ৩ টে, গরম জল ৩ কাপ



কীভাবে বানাবেন



চাল ধুয়ে জল ঝরিয়ে নিন। ঘি'য়ের সাথে হলুদ মিশিয়ে রাখুন। একটি পাত্রে চাল, আদাবাটা, নুন, হলুদ গুঁড়ো, গরমমশলা মেখে রাখুন। ঘি গরম করে গোটা গরমমশলা ফোড়ন দিয়ে কাজুবাদাম কিশমিশ অল্প ভেজে মেখে রাখা চাল দিয়ে ভাজুন। গরম জল দিয়ে ঢেকে রান্না করুন। চাল সেদ্ধ হলে চিনি, ঘি আর চেরা কাঁচালঙ্কা মিশিয়ে কিছুক্ষণ ঢেকে রেখে পরিবেশন করুন।

কুমড়োর ছক্কা


কী কী লাগবে 



পাকা মিষ্টি কুমড়ো ৫০০ গ্রাম, আলু ৪ টে মাঝারি মাপের,


ভিজিয়ে রাখা ছোলা এক মুঠো, নারকেল কোরা ২ টেবিল চামচ,


নুন স্বাদ মতো, সর্ষের তেল ২ টেবিল চামচ, আদা বাটা ১ চা চামচ, জিরে বাটা ১ চামচ, হলুদ গুঁড়ো ১ চা চামচ, শুকনো লঙ্কা বাটা ১ চা চামচ, চিনি স্বাদ অনুযায়ী, কাঁচালঙ্কা ১ টা, পাঁচফোড়ন ১/২ চা চামচ, তেজপাতা ১ টা, শুকনো লঙ্কা ১ টা, হিং ১/৪ চা চামচ



কীভাবে বানাবেন



কুমড়ো আর আলু একটু বড়ো করে কেটে নিন। তেল গরম করে শুকনো লঙ্কা, তেজপাতা, পাঁচফোড়ন, আদাবাটা, হিং দিয়ে একে একে আলু, কুমড়ো, নুন, হলুদ গুঁড়ো, জিরে বাটা, লঙ্কা বাটা দিয়ে কষুন। ঢেকে রান্না করুন। সব সেদ্ধ হলে ভেজানো ছোলা, নারকেল কোরা, চেরা কাঁচালঙ্কা, চিনি দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে মাখামাখা হলে নামিয়ে নিন।


শিলেবাটা মশলায় কই মাছ



কী কী লাগবে 


কই মাছ ৪ টে, নুন স্বাদ মতো, হলুদ গুঁড়ো ১ চা চামচ, আদাবাটা ১ চা চামচ, জিরে বাটা ১ চা চামচ, শুকনোলঙ্কা বাটা ১ চা চামচ, কালো জিরে ১/২ চা চামচ, সর্ষের তেল ৩ টেবিল চামচ, সর্ষে বাটা ১ টেবিল চামচ, টমেটো মাঝারি মাপের ১ টা, কাঁচালঙ্কা ২ টি, গরমজল পরিমাণ মতো।



কীভাবে বানাবেন


মাছগুলোর গা চিড়ে নুন হলুদ গুঁড়ো আর সরষের তেল মেখে রাখতে হবে আধঘন্টা। টমেটো, কাঁচালঙ্কা বেটে নিন। এবার একটি পাত্রে এই বাটার মিশ্রন, আদাবাটা, জিরা বাটা, শুকনো লঙ্কা বাটা, হলুদ গুঁড়ো একসাথে মিশিয়ে নিন। তেল গরম করে মাছ গুলো ভেজে তুলে নিন। ঐ তেলে কালোজিরা ফোড়ন দিয়ে মশলার মিশ্রন দিয়ে কষুন। তেল ছাড়লে সরষে বাটা আর গরমজল দিয়ে ফুটতে দিন। ঝোল ফুটে উঠলে ভাজা মাছ দিয়ে ঢেকে অল্প আঁচে রান্না করুন ৫ মিনিট। গরমভাতের সাথে পরিবেশন করুন।


রুইমাছের কালিয়া



কী কী লাগবে 


রুইমাছ ৬ টুকরো, বড় পেঁয়াজ ২ টো (১ টা বাটা আর ১ টা বেরেস্তার জন্য), আদা বাটা ২ চা চামচ, নুন স্বাদ মতো, হলুদ গুঁড়ো ১ চা চামচ, চিনি ১ চা চামচ, জিরে গুঁড়ো ১ চামচ, টকদই ২ টেবিল চামচ, কিশমিশ ১০-১৫ টা,


গোটা গরম মশলা (ছোট এলাচ, দারচিনি, লবঙ্গ), গোটা জিরে ১/২ চা চামচ, শুকনো লঙ্কা ১ টা, তেজপাতা ১ টা, সর্ষের তেল ৪ টেবিল চামচ, কাঁচালঙ্কা ২ টো, ঘি ২ চা চামচ, গুঁড়ো গরম মশলা ১/২ চা চামচ



কীভাবে বানাবেন


মাছগুলো নুন হলুদ গুঁড়ো মেখে ভেজে তুলে নিন। গোটা গরমমশলা, তেজপাতা, শুকনো লঙ্কা, গোটা জিরা ফোড়ন দিয়ে পেঁয়াজ বাটা, আদা বাটা, নুন, চিনি, হলুদ গুঁড়ো, লঙ্কা গুঁড়ো, জিরে গুঁড়ো দিয়ে কষুন। ফেটানো টকদই দিয়ে আরো কিছুসময় কষুন। কিশমিশ আর জল দিয়ে ফুটে উঠলে ভাজা মাছ গুলো দিয়ে ঢেকে রান্না করুন। ঘি, গরমমশলা গুঁড়ো, বেরেস্তা ছড়িয়ে নামিয়ে নিন।

Comentarios


bottom of page